গ্ৰামবাসীর নিজ অর্থায়নে তৈরি হচ্ছে শার্শার উলাশী জিয়া খালের উপর স্বপ্নের সেতু

মঙ্গলবার, জুন ২৫, ২০১৯ ১০:১৪ পূর্বাহ্ণ
Share Button

সোহেল রানা, শার্শা প্রতিনিধিঃ যশোরের শার্শা উপজেলার উলাশী জিয়ার খালের উপর নির্মিত হচ্ছে স্বপ্নের সেতু । গ্ৰামবাসীর উদ্যোগে ও নিজস্ব অর্থায়নে চলছে ব্রিজের নির্মাণ কাজ ।


এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, জিয়ার খালের উপর দিয়ে উলাশী বাজারে যাওয়া আসার এক মাত্র সহজ পথ এই সেতু। দীর্ঘদিন যাবত খালের উপর বাঁশের খুঁটি পুঁতে ঝাড়োন তৈরি করে গ্ৰামবাসী যাওয়া-আসা করতো। স্কুল- কলেজ পড়ুয়া ছেলে-মেয়ে ও অসুস্থ রোগীদের অনেক ভুগান্তিতে পড়তে হয় । অনেক সময় স্কুল- কলেজ থেকে যাওয়া আসার পথে বই খাতা নিয়ে পানিতে পড়েছে অনেকে।


তবে যাতাতের এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ পথ হওয়ায় সবাই এই খালের উপর দিয়ে যাতায়াতের পথ বেছে নিয়েছে। খালের উপর বাঁশের শাকো দিয়ে অন্তত সাতটি গ্ৰামের মানুষ চলাচল করেন। রঘুনাথপুর বাগ, ডাঙ্গী, করিময়ালী, মির্জাপুর, উলাশী, বেড়ারুপানি ও পাঁচপোতা গ্ৰামের হাজার হাজার মানুষ নিয়মিত যাতায়াত করেন।


প্রতি বছর বাঁশ দিয়ে শাকো তৈরি করে হাজার হাজার টাকা নষ্ট করতে হয়। এজন্য গ্ৰামবাসীর নিজ উদ্যােগে গ্ৰামের সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষসহ সকল শ্রেণী পেশার মানুষ চাঁদা দিয়ে নির্মাণ করছেন স্বপ্নের সেতুটি । এতে পাঁচ থেকে সাত লাখ টাকা খরচ করে পিলার গুলি স্থাপন করা হয়েছে ।


এখনো ১০ থেকে ১২ লাখ টাকা লাগতে পারে বলে জানান এলাকাবাসী । তবে এই মহান কাজে স্থানীয় সংসদ সদস্যসহ জনপ্রতিনিধিরা যদি এগিয়ে আসতো তাহলে হয়তো তাদের যাতায়াতের স্বপ্নের সেতুটি নির্মাণ কাজ সহজ হতো। এই সেতু নির্মাণের জন্য উদ্যােগ নিয়েছেন তারা হলেন- লোকমান হোসেন, মুজিবুর রহমান, মোয়াজ্জেম, আলিনুর, খাইরুল, মোহাম্মদ, খালেক, উলাশী ইউপি সদস্য তরিকুল ইসলাম মিলনসহ আরো অনেকে ।


জাহিদ হাসান ও খাইরুল ইসলাম বলেন, দুই থেকে আড়াই কিলোমিটার পথ ঘুরে তাদের উলাশী বাজারে যাওয়া লাগে । আগে শাকো দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে নিয়মিত যাতায়াত করতে হতো। তবে সব কথা চিন্তা করে এমন মহৎ উদ্যোগ নিয়েছে গ্ৰামবাসী।

তারা জনপ্রতিনিধিদের সাহায্য ছাড়াই কাজ শুরু করেছেন। এমতাবস্থায় সেতুটির কাজ শেষ করতে অনেক অর্থের দরকার। তাই সকলকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন গ্ৰামবাসী। 

Share Button